করোনা ভাইরাসের আক্রমণের হাত থেকে রেহাই পাচ্ছেন না রাজনৈতিক নেতারাও। রবিবারই জানা যায়, করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। এরপর করোনার কবলে কর্নাটকের মুখ্যমন্ত্রী বিএস ইয়েদুরাপ্পা। রবিবার গভীর রাতে তিনি নিজেই টুইট করে জানান যে, তাঁর করোনা পজিটিভ ধরা পড়েছেন। টুইটারে একটি সংক্ষিপ্ত পোস্টে বিজেপির ওই প্রবীণ নেতা লেখেন, তিনি নিজে সুস্থ বোধ করলেও চিকিৎসকদের পরামর্শে তাঁকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ইয়েদুরাপ্পাকে মণিপাল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। পাশাপাশি গত কয়েকদিন যাঁরা বিএস ইয়েদুরাপ্পার সান্নিধ্যে এসেছেন তাঁদের শরীরেও যদি কোভিড লক্ষণ দেখা যায় তাহলে অবশ্যই সেল্ফ আইসোলেশনে থাকার জন্য অনুরোধ করা হয়েছে। অন্যদিকে করোনা পজিটিভ ধরা পড়েছে ইয়েদুরাপ্পার মেয়েরও।

“আমি করোনা ভাইরাসের পরীক্ষায় পজিটিভ হিসাবে ধরা পড়েছি। যদিও আমি ভালোই আছি, তবু চিকিৎসকদের পরামর্শে আগাম সতর্কতা হিসাবে আমাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হচ্ছে। সম্প্রতি যাঁরা আমার কাছাকাছি এসেছিলেন তাঁদের সতর্ক থাকতে এবং সেল্ফ আইসোলেশনে যাওয়ার জন্য অনুরোধ করছি”. টুইটে লেখেন কর্নাটকের মুখ্যমন্ত্রী।

গত মাসে মধ্যপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী শিবরাজ সিং চৌহানও করোনা পজিটিভ হিসাবে ধরা পড়েন। তখন থেকেই তিনি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। ইয়েদুরাপ্পার করোনা আক্রান্ত হওয়ার খবর পেয়ে তিনি টুইট করেন, “ইয়েদুরাপ্পাজি আপনার দ্রুত সুস্থতার জন্য আমি ঈশ্বরের কাছে প্রার্থনা করছি।”

গতকাল করোনা ভাইরাস প্রাণ কেড়েছে উত্তরপ্রদেশের এক মন্ত্রী কমল রানি বরুণের। লখনউয়ের সঞ্জয় গান্ধি পোস্ট গ্রাজুয়েট ইনস্টিটিউট অফ মেডিকেল সায়েন্সে প্রয়াত হন তিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *